বিশ্বকাপে নিষিদ্ধ হবেন না মেসি-রোনালদোরা : পেরেজ

সুপার লিগ নিয়ে কড়া হুঁশিয়ারি দিয়ে রেখেছে ইউরোপীয় ফুটবল নিয়ন্ত্রক সংস্থা (উয়েফা)। ফিফা ও উয়েফা মিলে থেকে স্পষ্ট জানানো হয়েছে, ইউরোপীয় সুপার লিগে যে ক্লাবগুলো অংশ নেবে, তাদের উয়েফার সব ধরনের প্রতিযোগিতা থেকে নিষিদ্ধ করা হবে। এমনকি ওইসব দলের ফুটবলারদের জাতীয় দল থেকেও নিষিদ্ধ করার হুঁশিয়ারি দেওয়া হয়েছে।

উয়েফার কড়া বার্তার পর প্রশ্ন জাগে তাহলে কি সত্যিই বিশ্বকাপ বা জাতীয় দলের ম্যাচে দেখা যাবে না খেলোয়াড়দের? এমন সব প্রশ্নের উত্তর দিয়েছেন সুপার লিগ ও রিয়াল মাদ্রিদের সভাপতি ফ্লোরেন্তিনো পেরেজ। সুপার লিগ খেললে বিশ্বকাপ খেলা যাবে না – এমন কোনো ভয় নেই বলে আশ্বস্ত করছেন পেরেজ।

ইউরোপিয়ান ফুটবলে অনেকটা বিপ্লব ঘটিয়েই আসতে যাচ্ছে ইউরোপীয় সুপার লিগ। মোট ২০টি দল অংশ নেবে সুপার লিগে। তবে এখন পর্যন্ত ১২টি ক্লাবটি সুপার লিগে অংশ নেওয়ার জন্য সম্মতি জানিয়েছে। এর মধ্যে ছয়টি ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের ক্লাব। তিনটি  লা লিগার ও তিনটি ক্লাব সিরি এ-র। দলগুলো হলো : রিয়াল মাদ্রিদ, বার্সেলোনা, অ্যাথলেটিকো মাদ্রিদ, ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড, চেলসি, টটেনহ্যাম, আর্সেনাল, এসি মিলান, ইন্টার মিলান, জুভেন্টাস, লিভারপুল, ম্যানচেস্টার সিটি। অবশ্য তালিকায় নেই জার্মানি ও ফ্রান্সের কোনো ক্লাব।

এমন পরিস্থিতি নিয়ে শক্ত অবস্থানে দাঁড়িয়েছে ফুটবলের নিয়ন্ত্রক সংস্থা ও ইউরোপীয় ফুটবল নিয়ন্ত্রক সংস্থা (উয়েফা)। উয়েফা জানায়, এই লিগের বিরুদ্ধে লড়াই চালিয়ে যাবে তারা।

এমন পরিস্থিতি নিয়ে স্প্যানিশ টিভি শো ‘এল চিরিনগিতো দে হুগোনেস’-এ সাক্ষাৎকারে পেরেজ বলেন, ‘আমি নিশ্চিত করে বলছি, উয়েফা এসব শুধু ভয় দেখাতে বলছে। আমাদের ফুটবলারদের বিশ্বকাপ খেলা আটকানো যাবে না, আমি নিশ্চয়তা দিচ্ছি। তারা (ফুটবলার) শতভাগ নিশ্চিন্ত থাকতে পারে।’

একই সঙ্গে প্রশ্ন উঠেছে চ্যাম্পিয়ন্স লিগ নিয়েও। চলতি মৌসুমে সেমিফাইনালে ওঠা রিয়াল মাদ্রিদ, চেলসি ও ম্যানচেস্টার সিটি খেলতে পারবে কিনা সেটা নিয়েও শঙ্কা জেগেছে। তবে এই বিষয়েও নিশ্চয়তা দিয়েছেন পেরেজ। তিনি বলেন, ‘চ্যাম্পিয়ন্স লিগ থেকে তারা আমাদের বাদ দেবে? কোনোভাবেই সম্ভব নয়। আমি শতভাগ নিশ্চয়তা নিতে পারি, তারা পারবে না। রিয়াল মাদ্রিদ, ম্যানচেস্টার সিটি ও চেলসিসহ সুপার লিগের অন্যান্য ক্লাবকে চ্যাম্পিয়ন্স লিগ বা ঘরোয়া লিগ থেকে নিষিদ্ধ করা হবে না। এটা করা অসম্ভব।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *