সংগীতগুরু সঞ্জীব দে আর নেই

সংগীতগুরু সঞ্জীব দে আর নেই। বৃহস্পতিবার (২৮ জানুয়ারি) রাত ১১টার দিকে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি।

সংগীত পরিচালক ফরিদ আহমেদ জানান, নয়াটোলার বাসায় অসুস্থ হয়ে পড়েন সঞ্জীব দে। তারপর রাত ১১টার দিকে ধানমন্ডির আনোয়ার খান মর্ডান হাসপাতালে নেওয়ার পথে মারা যান তিনি।

সংগীতশিল্পী দিনাত জাহান মুন্নী সঞ্জীব দে’র শিক্ষার্থী ছিলেন। এ বিষয়ে তিনি বলেন—আমি জেনেছি গুরুজি হার্ট অ্যাটাক করেছিলেন। শুক্রবার (২৯ জানুয়ারি) সকাল ৯টার দিকে গুরুজির জন্মস্থান ময়মনসিংহে তার মরদেহ নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

সঞ্জীব দে’র দাদা পেয়ারী মোহন দে ছিলেন বাঁশিবাদক, বাবা মিথুন দে উচ্চাঙ্গ সংগীতের নামকরা গুরু ছিলেন। সেই ধারাবাহিকতায় সঞ্জীব দে’র সংগীতের পথচলা। ১৯৭৪ সাল থেকে পরম মমতায় সংগীত শিক্ষার কাজটি করে আসছিলেন তিনি।

সংগীতশিল্পী শাকিলা জাফর, আলম আরা মিনু, বাপ্পা মজুমদার, আঁখি আলমগীর, দিনাত জাহান মুন্নীর মতো অসংখ্য শিল্পী তার কাছ থেকে গানের তালিম নিয়েছেন। দেশের সফল ও জনপ্রিয় সংগীতগুরু হিসেবে সঞ্জীব দে’কে মূল্যায়ন করা হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

eighteen + seven =

Translate »