ওয়াশিংটনে ট্রাম্পপন্থিদের সঙ্গে বিরোধীদের ব্যাপক সংঘর্ষ

আমেরিকার ওয়াশিংটন ডিসিতে প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পপন্থিদের সঙ্গে ব্যাপক সংঘর্ষ হয়েছে বিরোধী গ্রুপের। শনিবার রাতে উভয়পক্ষের মধ্যে হাতাহাতি থেকে এই সংঘর্ষ বাঁধে। এ সময় একজন গুলিবিদ্ধ হয়েছে।

তবে পুলিশ সেখানে দ্রুততার সঙ্গে হস্তক্ষেপ করে। উভয়পক্ষের ওপর পিপার-স্প্রে প্রয়োগ করে তাদের ছত্রভঙ্গ করে দেয়। এ সময় ছয়জনকে গ্রেফতার করে পুলিশ। খবর এবিসি, সিএনএন, এনবিসি ও রয়টার্সের।

বিভিন্ন গণমাধ্যমের প্রতিবেদনে বলা হয়, ৩ নভেম্বরের নির্বাচনে কোনও প্রমাণ ছাড়াই প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পসহ তার সমর্থকরা দাবি করে আসছেন, ভোটে ব্যাপক কারচুপি হয়েছে। ভোট চুরি করা হয়েছে। এ নিয়ে আদালত, বিশেষ করে সুপ্রিম কোর্টে যখন মামলা খারিজ হয়ে যাচ্ছে, তখন ট্রাম্পন্থিরা শনিবার রাতে রাস্তায় নামে।
‘স্টপ দ্য স্টিল’ কর্মসূচির আয়োজকরা এবং চার্চ গ্রুপগুলো সমর্থকদের প্রতি আহ্বান জানায় এসব র‌্যালিতে অংশ নিতে। ফলে যুক্তরাষ্ট্রের বিভিন্ন শহরে বা রাজ্যে বিক্ষোভ হয়েছে। কিন্তু ট্রাম্পপন্থি ‘প্রাউড-বয়েজ’ বিক্ষোভকারী এবং প্রতিপক্ষ ‘এন্টিফা’র মধ্যে ওয়াশিংটন ডিসিতে হাতাহাতি শুরু হয়। ট্রাম্প হোটেলের কাছে এর আগে বিক্ষোভে অংশ নেয় অধিক উগ্রপন্থি প্রাইড-বয়েজের প্রায় ২০০ সদস্য। এ সময় তাদের বেশির ভাগই ছিলেন রণ সাজে। তাদের গায়ে ছিল কালো ও হলুদ শার্ট। বুকে ছিল ব্যালেস্টিক ভেস্ট পরা। মাথায় ছিল হেলমেট। ব্যবহার করেছে হ্যান্ড-সিগন্যাল। এসব করে থাকে সাধারণত শ্বেতাঙ্গ আধিপত্যবাদীরা। তারও আগে সড়কে অবরোধ সৃষ্টি করে দাঙ্গা পুলিশ। তারা ছিল রায়ট গিয়ারে এবং বাইসাইকেলে। রাত নামার পর বিক্ষোভকারীরা ছোট ছোট দলে বিভক্ত হয়ে যায়। তারা সড়কের বিভিন্ন স্থানে প্রতিপক্ষকে খুঁজতে থাকে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *