শিল্পীদের অনাগ্রহ ধারাবাহিক নাটকে

টিভি ধারাবাহিক নাটকে নেই চলতি সময়ের জনপ্রিয় অভিনয় শিল্পীদের অনেকেই। ধারাবাহিক নাটকের প্রতি এই শিল্পীদের দারুণ অনাগ্রহ লক্ষ্য করা যাচ্ছে কয়েক বছর ধরে। খণ্ড নাটকেই তারা স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করেন বলে জানান। হাল সময়ের জনপ্রিয় শিল্পীদের মধ্যে নুসরাত ইমরোজ তিশা, আফরান নিশো, মেহজাবিন, তানজিন তিশা, সজল, তাসনিয়া ফারিন, জোভানসহ অনেককেই শেষ কয়েক বছরে ধারাবাহিক নাটকে পাওয়া যায়নি।

আবার ধারাবাহিক নাটকের নিয়মিত অভিনয় শিল্পীদেরও কেউ কেউ এখন খণ্ড নাটকের দিকেই ঝুঁকছেন। তারই ধারাবাহিকতায় সম্প্রতি অভিনেত্রী অহনাও টিভি ধারাবাহিকে অভিনয় না করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। ধারাবাহিক নাটকের দুর্বল গল্পের কারণেই শিল্পীরা খণ্ড নাটকমুখী বলে তাদের অনেকে জানিয়েছেন। তবে এর সঙ্গে এক মত প্রকাশ করতে পারেননি জনপ্রিয় অভিনেত্রী নাদিয়া আহমেদ।

একক নাটকের পাশাপাশি নিয়মিত তিনি ধারাবাহিক নাটকে কাজ করছেন। এই অভিনেত্রীর হাতে আছে একাধিক ধারাবাহিক নাটক। তার ভাষ্য, যারা ধারাবাহিকে কাজ করছেন না তারা চান রাতারাতি তারকা হতে। বেশি বেশি লাইক ফলোয়ারের জন্য তারা মরিয়া হয়ে উঠেছেন। এ ধরনের অভিনয় শিল্পীরাই ধারাবাহিক নাটক থেকে দূরে আছেন। কতগুলো একক নাটকের গল্প খুব ভালো হচ্ছে? আমি তো ধারাবাহিক নাটকের বাইরে একক নাটকেও কাজ করছি। সেই গতানুগতিক প্রেম-ভালোবাসার বাইরে বেশি কিছু দেখি না। দুই-একটি নাটক হয়তো ব্যতিক্রম হচ্ছে। সেটি কোনো উদাহরণ হতে পারে না।

সব ধারাবাহিক নাটকের গল্প দুর্বল এটি বলা ঠিক হবে না। গেল দুই বছরে বেশ কয়েকটি ধারাবাহিক নাটক দর্শকের পছন্দের শীর্ষে আছে। বিষয়টি নিয়ে জনপ্রিয় অভিনেত্রী মেহজাবিন চৌধুরী বলেন, এখন যে ধরনের গল্পের ধারাবাহিক নাটক নির্মাণ হচ্ছে সেসব নাটকে নিজেকে অভিনেত্রী হিসেবে মেলে ধরার সুযোগ কম থাকে। এক্ষেত্রে খণ্ড নাটকে অভিনেত্রী হিসেবে প্রমাণের যথেষ্ট সুযোগ রয়েছে। দর্শকরাও আজকাল খণ্ড নাটকের প্রতিই বেশি আগ্রহী।

হাল সময়ের জনপ্রিয় অভিনেত্রী তাসনিয়া ফারিনও ধারাবাহিক নাটকে কাজ না করার কারণ জানালেন। এখন সময়টা একক নাটকের বলেই তিনি মন্তব্য করেন। তিনি আরো বলেন, আমি যতটুকু পরিচিতি পেয়েছি সেটি খণ্ড নাটক থেকেই। তাই এর প্রতি আমার অন্যরকম একটা আগ্রহ আছে। এ ছাড়া দর্শকরা এখন একক নাটকের দিকেই বেশি মনোযোগী। অল্প সময়ের মধ্যে এর কাজ শেষ করা যায়। কিন্তু ধারাবাহিকে যেকোনো চরিত্রের জন্য লম্বা সময়ের প্রয়োজন পড়ে।

এ ছাড়া, সত্যি বলতে ধারাবাহিক নাটকে টানা সময় দেয়ার মতো সময় আমার হাতে নেই। গেল তিন বছর ধারাবাহিক নাটকে কাজ করছেন না বলে জানান চলতি সময়ের অভিনেতা জোভান। তিনি বলেন, আমি শুরুতে ধারাবাহিকে কাজ করেছি। কিন্তু শেষ তিন বছরে কোনো ধারাবাহিকে কাজ করা হয়নি। একই ধরনের চরিত্রে কাজ করতে করতে বোরিং হয়ে যাই। গৎবাঁধা চরিত্রে কতদিন কাজ করা যায়। তাই একক নাটকেই কাজ করার সিদ্ধান্ত নিই। প্রসঙ্গত, নাটক সংশ্লিষ্টদের মতে, একটা সময় টিভি ধারাবাহিকের দিকে দর্শকদের অন্যরকম আগ্রহ দেখা যেতো। দর্শকদের এখন সেই আগের মতো আগ্রহ নেই। গল্পের দুর্বলতা, শিল্পীদের চরিত্রের ধারাবাহিকতা না থাকা ও বাজেট সংকটসহ বিভিন্ন কারণে বেশির ভাগ ধারাবাহিক নাটক দর্শকদের ধরে রাখতে পারছে না।

দর্শকরা ভারতীয় সিরিয়ালগুলো এখন বেশি দেখে। তাদের উপস্থাপনা ও নির্মাণশৈলীর মধ্যে ভিন্নতা দেখা যায়। শহর থেকে শুরু করে গ্রাম-গঞ্জেও দর্শকরা ভারতীয় সিরিয়াল দেখছে। দর্শকদের টিভি ধারাবাহিকের দিকে ফেরাতে হলে নির্মাতা ও টিভি চ্যানেলগুলোকে নতুনভাবে ভাবতে হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

13 − 12 =

Translate »