পাকিস্তানের পেশোয়ারে মাদ্রাসায় বিস্ফোরণে নিহত ৭

পাকিস্তানের পেশোয়ারের একটি মাদ্রাসায় আজ মঙ্গলবার সকালে ক্লাস চলাকালে বিস্ফোরণে অন্তত সাতজন নিহত হয়েছে। পুলিশের বরাতে বিবিসি অনলাইনের প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়।

ঘটনাস্থল থেকে এক কর্মকর্তা বিবিসিকে জানিয়েছেন, নিহত সাতজনের বয়স ২০ থেকে ৩০ বছরের মধ্যে।

বিস্ফোরণে অনেকেই আহত হয়েছে। তাদের স্থানীয় হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে।

হাসপাতালের কর্মকর্তারা বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে বলেছেন, অনেককে আহত অবস্থায় হাসপাতালে আনা হয়েছে। তাদের মধ্যে অনেকের শরীর পুড়ে গেছে।

বিস্ফোরণের ঘটনাটিকে ‘সন্ত্রাসী হামলা’ বলছেন দেশটির কর্মকর্তারা। তবে এখন পর্যন্ত কোনো গোষ্ঠী এই হামলার দায় স্বীকার করেনি।

বিস্ফোরণের ঘটনাটি তদন্ত করে দেখছে দেশটির কর্তৃপক্ষ।

উত্তরাঞ্চলীয় শহর পেশোয়ার আফগান সীমান্তের কাছে অবস্থিত। সাম্প্রতিক বছরগুলোয় শহরটিতে বেশ কিছু ভয়াবহ সহিংস ঘটনা ঘটেছে।

ছয় বছর আগে পেশোয়ারের একটি সামরিক স্কুলে বন্দুকধারীরা হামলা চালায়। ওই হামলায় দেড় শজনের বেশি মানুষ নিহত হয়। নিহত ব্যক্তিদের মধ্যে অনেক শিশু ছিল।

স্থানীয় সময় মঙ্গলবার সকাল সাড়ে আটটার দিকে বিস্ফোরণটি ঘটে

স্থানীয় সময় মঙ্গলবার সকাল সাড়ে আটটার দিকে বিস্ফোরণটি ঘটে
ছবি: এএফপি

পুলিশ জানায়, স্থানীয় সময় আজ সকাল ৮টা ৩০ মিনিটের দিকে মাদ্রাসার শ্রেণিকক্ষে বিস্ফোরণের ঘটনাটি ঘটে। এ সময় শ্রেণিকক্ষে ৬০ জনের মতো উপস্থিত ছিল।

এক প্রত্যক্ষদর্শী পুলিশকে জানান, বিস্ফোরণের ঠিক আগে তিনি এক ব্যক্তিকে বিস্ফোরকভর্তি একটি ব্যাগ নিয়ে ভবনের ভেতরে ঢুকতে দেখেছেন।

পুলিশের এক কর্মকর্তা বলেছেন, হামলায় প্রায় পাঁচ কেজি বিস্ফোরক ব্যবহার করা হয়েছে বলে তাঁদের মনে হয়েছে।

বিস্ফোরণস্থলের যেসব ছবি ইতিমধ্যে পাওয়া গেছে, তাতে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতির চিত্র দেখা গেছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *