লিগ ম্যাচে লিভারপুল ও পিএসজির জয়

ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে টানা দুই ম্যাচে পয়েন্ট হারানোর পর জয়ের দেখা পেল লিভারপুল। শেফিল্ড ইউনাইটেডের বিরুদ্ধে পিছিয়ে পড়েও শেষ পর্যন্ত ২-১ গোলে জয় তুলে নেয় ইয়র্গেন ক্লপের শিষ্যরা।

দলের হয়ে একটি করে গোল করেন রবের্তো ফিরমিনো ও দিয়োগো জোতা।

 

শনিবার ঘরের মাঠ অ্যানফিল্ডে লিভারপুল প্রথম মিনিটেই এগিয়ে যেতে পারতো। তবে ডি-বক্সের ভেতর সাদিও মানের শট রুখে দেন প্রতিপক্ষের ডিফেন্ডার। কিন্তু ১৩তম মিনিটে উল্টো লিড নেয় শেফিল্ড। পেনাল্টি থেকে গোলটি করেন সান্দের বের্গ। লিভারপুলের ফাবিনিয়ো ফাউল করায় রেফারি শুরুতে ফ্রি-কিক দিলেও ভিএআরের সাহায্যে পেনাল্টির বাঁশি বাজান।

ম্যাচের ৪১তম মিনিটে স্বাগতিকদের সমতায় ফেরান ফিরমিনো। ডান দিক থেকে সতীর্থের ক্রসে মানের জোরালো হেড গোলরক্ষক ফেরানোর পর খুব কাছ থেকে ফাঁকা জালে বল পাঠান ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড।

দ্বিতীয়ার্ধে ৬১তম মিনিটে মোহামেদ সালাহ বল জালে পাঠালেও অফসাইডের কারণে গোল পায়নি লিভারপুল। একটু পরই অবশ্য জোতার গোলে এগিয়ে যায় তারা। বাঁ দিক থেকে মানের ক্রসে হেডে ঠিকানা খুঁজে নেন পর্তুগিজ ফরোয়ার্ড। আর এ গোলই দলের জয় নিশ্চিত করে।

লিগে ছয় ম্যাচে ১৩ পয়েন্ট নিয়ে দুইয়ে আছে ক্লপের দল। এক ম্যাচ কম খেলে সমান পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে এভারটন।

এদিকে লিগের অপর হাইভোল্টেজ ম্যাচে মুখোমুখি হয়েছিল ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড ও চেলসি। ওল্ড ট্র্যাফোর্ডে ম্যাচটি গোলশূন্য ড্র হয়েছে। ছয় ম্যাচে দুই জয় ও তিন ড্রয়ে ৯ পয়েন্ট নিয়ে ষষ্ঠ স্থানে আছে চেলসি। এক ম্যাচ কম খেলে দুই জয় ও এক ড্রয়ে ৭ পয়েন্ট নিয়ে পঞ্চদশ স্থানে আছে ইউনাইটেড।

 

################################################

মাঠে দলগত খেলা হলো দারুণ। জোড়া গোল করেছেন মোইজে কিন ও কিলিয়ান এমবাপ্পে।

আর এতেই লিগ ওয়ানে দিজোঁর বিপক্ষে ৪-০ গোলের বড় জয় তুলে নিয়েছে পিএসজি।

 

শনিবার ঘরের মাঠ পার্ক দেস প্রিন্সেসে ম্যাচের তৃতীয় মিনিটেই এগিয়ে যায় পিএসজি। বাঁ দিক থেকে ডাচ ডিফেন্ডারের মিচেল বাকারের ক্রস ছয় গজে বক্সে পেয়ে ডান পায়ের ভলিতে গোলটি করেন ইতালিয়ান ফরোয়ার্ড কিন।

পরে ২৩তম মিনিটে জোড়া গোল পূর্ণ করে দলের ব্যবধান দ্বিগুণ করেন কিন। এই গোলে অবশ্য নেইমারের কৃতিত্ব অনেক বেশি। বাঁ দিক দিয়ে ডি-বক্সে ঢুকে ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড এক জনকে কাটিয়ে পাস দেন সতীর্থকে। গোলরক্ষক এগিয়ে গিয়ে চেষ্টা করেও পারেননি বল আটকাতে, অনায়াসে ফাঁকা জালে বল পাঠান মৌসুমের শুরুতে ধারে পিএসজিতে যোগ দেওয়া ২০ বছর বয়সী ফরোয়ার্ড।

দ্বিতীয়ার্ধে ৮২তম মিনিটে ব্যবধান বাড়ান এমবাপ্পে। নেইমারের পাস ধরে ডি-বক্সে ঢুকে একজনের বাধা এড়িয়ে গোলরক্ষকের দুই পায়ের মাঝ দিয়ে লক্ষ্যভেদ করেন তিনি। আর ৮৮ মিনিটে ব্যবধান আরও বাড়িয়ে বড় জয় নিশ্চিত করেন এই ফরাসি তরুণ। এই গোলেও ছিল নেইমারের অবদান। নেইমারের পাস পেয়ে পাবলো সারাবিয়া খুঁজে নেন এমবাপ্পেকে। আর ডান পায়ের শটে বল লক্ষ্যে পাঠান।

লিগে ১৮ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছে পিএসজি। এক ম্যাচ কম খেলা লিল ১৭ পয়েন্ট নিয়ে আছে দুই নম্বরে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *