ধাক্কা সামলিয়ে জয়ে ফিরল ধোনির চেন্নাই

আগের ম্যাচে হারের পর সতীর্থদের আরও পেশাদার হতে বলেছিলেন চেন্নাই সুপার কিংস অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনি। তবু সানরাইজার্স হায়দরাবাদের বিপক্ষে কপাল কুঁচকেছে চেন্নাই অধিনায়কের।

১৬ বলে ৪২ রানের দূরত্বে ছিল সানরাইজার্স। এমন চাপের মুহূর্তে লং অনে চেন্নাইয়ের পেসার শার্দুল ঠাকুর রশিদ খানের ক্যাচ ছক্কা বানিয়ে দেন! ঠিকমতো লাফ দিতে না পারায় ক্যাচটা নিতে পারেননি। তবে চেন্নাই ঠিকই জয় তুলে নিয়েছে।

ফিফটি তুলে নিলেও সানরাইজার্সকে জেতাতে পারেননি উইলিয়ামসন

ফিফটি তুলে নিলেও সানরাইজার্সকে জেতাতে পারেননি উইলিয়ামসন
ছবি: টুইটার

শেষ ৫ ওভারে ৬৭ রান দরকার ছিল সানরাইজার্সের। উইকেটে ছিলেন কেন উইলিয়ামসন ও বিজয় শঙ্কর। ১৭ ও ১৮তম ওভারে যথাক্রমে বিজয় ও উইলিয়ামসন আউট হওয়ার পরও জয়ের আশা ছিল সানরাইজার্সের। মারকুটে রশিদ খান তখন উইকেটে, শেষ ২ ওভারে দরকার ২৭। কিন্তু এই ২ ওভারে চেন্নাইকে ম্যাচটা বের করে দেন শার্দুল ও ডোয়াইন ব্রাভো।

১৯তম ওভারে মাত্র ৫ রান দিয়ে রশিদকেও ফিরিয়েছেন শার্দুল। লং অনে ক্যাচ দেওয়ার আগেই হিট উইকেট হন সানরাইজার্সের আফগান লেগ স্পিনার (৮ বলে ১৪)। শেষ ওভারে ২২ রান তোলার চাপ আর নিতে পারেননি সানরাইজার্সের লেজের ব্যাটসম্যানরা।

ব্রাভো মাত্র ১ রান দিয়ে ২০ রানের ঝকঝকে জয় এনে দেন চেন্নাইকে। ৮ উইকেটে ১৪৭ রানে থেমেছে সানরাইজার্সের ইনিংস। এর আগে টস জিতে ব্যাটিংয়ে নেমে ৬ উইকেটে ১৬৭ রান তুলেছিল চেন্নাই। টানা দুই ম্যাচ হারের পর জয়ের মুখ দেখল ধোনির দল।

সানরাইজার্সের হয়ে ৩৯ বলে ৫৭ রান করেন উইলিয়ামসন। কিউই ব্যাটসম্যান যতক্ষণ উইকেটে ছিলেন জয়ের আশা ছিল সানরাইজার্সের। চাপের মুহূর্তে তাঁর আউট হওয়া ভুগিয়েছে দলটিকে। তাদের শুরুটাও ভালো হয়নি। প্রথম ১০ ওভার শেষে স্কোর ছিল ৩ উইকেটে ৬০। এখান থেকে শেষ ১০ ওভারে ১০৮ রান তোলার চ্যালেঞ্জ নিতে পারেননি সানরাইজার্সের ব্যাটসম্যানরা। চেন্নাইয়ের হয়ে ২টি করে উইকেট করণ শর্মা ও ব্রাভোর।

এর আগে চেন্নাই ওপেনার ফাফ ডু প্লেসি আউট হন মুখোমুখি হওয়া প্রথম বলে উইকেটের পেছনে ক্যাচ দিয়ে। ডু প্লেসি ফেরেন দলকে ১০ রানে রেখে তৃতীয় ওভারে। সন্দীপের দ্বিতীয় শিকার পঞ্চম ওভারে স্যাম কারেন। চেন্নাইয়ের রান তখন ৩৫, ইংলিশ অলরাউন্ডারের ৩১। ২১ বলেই এই রান তোলেন কারেন। এরপর তৃতীয় উইকেটে ৮১ রান আসে শেন ওয়াটসন ও অম্বাতি রাইডু জুটি থেকে।

৩৮ বলে ৪২ রান করেন ওয়াটসন, রাইডু ৪১ রান করেছেন ৩৪ বলে। ১৭তম ওভারে দ্বিতীয় বলে চতুর্থ ব্যাটসম্যান হিসেবে ওয়াটসনের বিদায়ের পর শেষ ২২ বলে ৪৭ রান তোলে চেন্নাই। ১৩ বলে ২ চার ও ১ ছক্কায় ২১ রান করছেন দলটির অধিনায়ক এমএস ধোনি, ১০ বলে ৩ চার ও ১ ছক্কায় ২৫ রান করে অপরাজিত ছিলেন রবীন্দ্র জাদেজা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *