সোহাগ হত্যা: কিশোর গ্যাংয়ের দুই আসামি গ্রেপ্তার

রাজধানীর উত্তরখানের রাজবাড়ি এলাকায় কলেজশিক্ষার্থী মো. সোহাগ (২০) হত্যার ঘটনায় প্রধান দুই আসামিকে গ্রেপ্তার করেছে র‍্যাব।

গ্রেপ্তার ওই দুই আসামি হলেন মাহবুবুল ইসলাম রাসেল ওরফে কাটার রাসেল (২০) ও হৃদয় (২২)।

র‌্যাবের লিগ্যাল অ্যান্ড মিডিয়া উইংয়ের সিনিয়র সহকারী পরিচালক এএসপি সুজয় সরকার আজ মঙ্গলবার (২২ সেপ্টেম্বর) বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। গ্রেপ্তার দুইজনই কিশোর গ্যাংয়ের সদস্য বলে জানান তিনি।

এএসপি সুজয় বলেন, গতকাল সোমবার দিবাগত রাতে দক্ষিণখান থানা এলাকায় অভিযান চালায় র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব-১)-এর একটি দল। এসময় সেখান থেকে কিশোর গ্যাংয়ের দুই সদস্য মামলার প্রধান দুই আসামি রাসেল ও হৃদয়কে গ্রেপ্তার করা হয়।

গত ২৭ আগস্ট রাত সাড়ে ৮টার দিকে রাজধানীর উত্তরখানের রাজাবাড়ি খ্রিস্টানপাড়ায় রিকশার চাকা থেকে কাদা ছিটকে গায়ে পড়ায় এক রিকশাচালককে বকাঝকা ও মারধর করে কিশোর দুর্বৃত্তরা। তাই দেখে প্রতিবাদ করেন কলেজছাত্র সোহাগ। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে কিশোর দুর্বৃত্তদের একজন সোহাগের পেটে ছুরিকাঘাত করে। তাকে উদ্ধার করে উত্তরা নর্দার্ন হাসপাতালে নেওয়া হলে সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

ঘটনার পরদিন নিহতের বড় ভাই মেহেদী হাসান সাগর বাদী হয়ে উত্তরখান থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন। ওই মামলায় মাহবুবুল ইসলাম রাসেল ওরফে কাটার রাসেল, হৃদয়, সাদ (২০), সাব্বির হোসেন (২০) ও সানি (২১) এর নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাত আরো চার-পাঁচজনকে আসামি করা হয়।

নিহত সোহাগ রাজধানীর উত্তরখান এলাকায় স্থানীয় একটি কলেজের দ্বাদশ শ্রেণির শিক্ষার্থী ছিলেন। করোনায় এইচএসসি পরীক্ষা না হওয়ায় টঙ্গীতে দুলাভাইয়ের শুঁটকির ব্যবসায় সহযোগিতা করছিলেন তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *