লিভারপুলেই আসলো থিয়াগো আলকানতারা

বার্সেলোনা, ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড এবং টটেনহ্যামের মতো ক্লাব অনেক ফুটবলারেই নজর রেখেছিল। কিন্তু কার্যকরী তেমন কাউকে দলে আনতে পারেনি। চেলসি এবং লিভারপুল এইখানে অন্যদের থেকে আলাদা। যাকে দলে গুরুত্বপূর্ণ মনে হয়েছে ছিনিয়ে এনেছে।

চেলসি যেমন কাই হার্ভাটেজ, টিমো ওয়ার্নার, হাকিম জায়িক কিংবা থিয়াগো সিলভার মতো তারকাকে দলে এনেছে। লিভারপুল তেমনি শুরু থেকেই চোখ রেখেছে বায়ার্ন মিউনিখের মিডফিল্ডার থিয়াগো আলকানতারায়। বায়ার্ন তাকে ধরে রাখার চেষ্টাও করেছে। কিন্তু থিয়াগোর ইচ্ছায় শেষ পর্যন্ত সম্পন্ন হয়েছে স্প্যানিশ মিডফিল্ডারের অ্যানফিল্ডে আসা।

সংবাদ মাধ্যম গোল জানতে পেরেছে, বায়ার্ন মিউনিখের সঙ্গে অল রেডসদের ২২ মিলিয়ন ইউরোর চুক্তি হয়েছে। এছাড়া বোনাস এবং বিজ্ঞাপন শর্ত মিলিয়ে তাদের খরচটা পড়ে যাবে ৩০ মিলিয়ন ইউরো। চার বছরের জন্য জার্গেন ক্লপের অধীনে খেলার জন্য চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন আলকানতারা।

লিভারপুলে আলকানতারা ছয় নম্বর জার্সি পরবেন। যেটা পরে খেলতেন ডিজেন লভরেন। বায়ার্নের প্রধান নির্বাহী জানিয়েছেন, আমরা শেষ পর্যন্ত লিভারপুলের সঙ্গে সমঝোতায় পৌঁছেছি। থিয়াগোর ইচ্ছা নতুন ক্লাবের হয়ে নতুন কিছু করা।

লিভারপুেলর মিডফিল্ডার উইজনালডম বার্সায় যাওয়ার চেষ্টা করছেন। মৌসুম শেষেই অল রেডসদের সঙ্গে তার চুক্তি শেষ। তবে উইজনালডমের বিকল্প চিন্তায় থিয়াগোকে অ্যানফিল্ডে আনেননি জার্গেন ক্লপ। বরং ম্যানসিটি-ম্যানইউ-চেলসির মতো দলের বিপক্ষে মিডফিল্ডের লড়াইয়ে জিততেই ক্লচের পছন্দ আলকানতারা। লিভারপুলে আসলেও রোববার চেলসির বিপক্ষে ম্যাচে খেলতে পারবেন না সাবেক বার্সা মিডফিল্ডার।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *