কিম জং উনের সমালোচনা করায় ৫ কর্মকর্তা ফায়ারিং স্কোয়াডে

নৈশভোজে উত্তর কোরিয়ার শীর্ষনেতা কিম জং উনের রাষ্ট্র পরিচালনা নীতির সমালোচনা করায় দেশটির অর্থ মন্ত্রণালয়ের পাঁচ কর্মকর্তাকে ফায়ারিং স্কোয়াডে নিয়ে হত্যা করা হয়েছে। শুক্রবার দক্ষিণ কোরিয়ার সংবাদমাধ্যম ডেইলি এনকে এ তথ্য জানিয়েছে।

সংবাদমাধ্যমটি দাবি করেছে, ওই পাঁচ কর্মকর্তা দীর্ঘদিন বাণিজ্য ও অর্থনৈতিক ইস্যুতে বিদ্যমান সমস্যা সমাধানে ব্যর্থতার জন্য প্রকাশ্যে উত্তর কোরিয়া সরকারের সমালোচনা করেন। তাদেরই এক তরুণ সহকর্মী এই আলোচনার বিষয়টি ঊর্ধ্বতনদের জানিয়ে দেন। পরে তাদেরকে গ্রেপ্তার করা হয় এবং তাদের পরিবারের সদস্যদের ইয়োদোক এলাকার রাজনৈতিক বন্দিশিবিরে নিয়ে রাখা হয়। গত ৩০ জুলাই ওই পাঁচ কর্মকর্তাকে ফায়ারিং স্কোয়াডে নিয়ে গুলি করে হত্যা করা হয়।

এই ঘটনা প্রকাশের এক দিন আগে শুক্রবার মার্কিন সংবাদমাধ্যম সিএনএন জানায়, বিশ্বাসঘাতকতা ও দুর্নীতির অভিযোগে ২০১৩ সালে নিজের ফুপা জাং সং থায়েককে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছিলেন কিম জং উন। পরে তার মুণ্ডুবিহীন দেহ জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তাদের দেখানোর জন্য রেখে দিয়েছিলেন উত্তর কোরিয়ার শীর্ষ নেতা। মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প অনুসন্ধানী সাংবাদিক বব উডওয়ার্ডকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে এ তথ্য জানিয়েছেন।

সাক্ষাৎকারে ট্রাম্প বলেছেন, উন তাকে জানিয়েছেন থায়েকের ‘বুকের ওপর বসে তার মাথা কাটা হয়েছিল।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *