জিন্স পড়ার আগে জেনে নিন অজানা ৫ টি তথ্য !

ছেলে হোক বা মেয়ে, বাচ্ছা হোক বা বুড়ো। জিনস পড়তে অনেকেই পছন্দ করেন। আমাদের ওয়ার্ডড্রবের বেশিরভাগটাই দখল করে থাকে জিনস। কিন্তু শুধু পড়লেই হলোনা দরকার সঠিক পরিচর্যার। তবেই আপনার প্রিয় জিনসটা থাকবে চিরকাল এলদম নতুনের মতন।এর জন্য আপনাকে মানতে হবে কিছু বিষয়।

কিন্তু কম যত্ন নেওয়া আর একেবারেই যত্ন না নেওয়ার মধ্যে ফারাকটা বেশির ভাগ সময়ে গুলিয়ে ফেলি আমরা। তাই বুঝে উঠতে পারি না, ঠিক কী কী উপায়ে জিন্‌সের যত্ন নেওয়া সম্ভব। কয়েকটা পদ্ধতি অবলম্বন করলেই কিন্তু নতুন জিন্‌সের প্যান্ট বছরের পর বছর সুন্দর ও নতুনের মতোই থাকতে পারে। জানেন সে সব কী কী?

১। ধোয়ার আগে উল্টে নিন জিন্‌স। এতে সরাসরি সাবানের সংস্পর্শে এসে নষ্ট হয় না জিন্‌সের রং। রোদের হাত থেকে রং বাঁচাতে শুকোতেও দিন উল্টো করে।
২। জিন্‌স ভাল রাখতে তা কখনওই ওয়াশিং মেশিনে ধোবেন না।
অনেকের মধ্যেই এই প্রবণতা দেখা যায়। ওয়াশিং মেশিনের কেন্দ্রাতিক শক্তি জিন্‌স-কাপড়ের সুতার ক্ষতি করে। বরং ভালো ডিটারজেন্টে ডুবিয়ে হাতেই কাচুন জিন্‌স।
৩। অনেক সময়ই জিন্‌সে লাগা কোনও দাগ উঠতে চায় না সহজে। এমন হলে জলের সঙ্গে একটু লেবুর রস ও বেকিং সোডা মিশিয়ে সেই মিশ্রণ পুরনো টুথব্রাশের সাহায্যে ঘষুন দাগের জায়গায়। তারপর তা কাচুন ডিটারজেন্ট দিয়ে। এতে সহজেই উঠবে দাগছোপ।
৪। তেলের দাগ কিন্তু এভাবে উঠবে না। তার জন্য বেবি পাউডার মাখান দাগের উপর। ও ভাবেই রেখে দিন অনেক ক্ষণ। তার পর কাচুন ডিটারজেন্ট দিয়ে। পাউডার শুষে নেবে তেলের দাগ।
৫। জিন্‌সের ভাঁজ, কাপড় সব ভাল রাখতে কাচার পরেই ইস্ত্রি করুন। একই জিন্‌স চার দিন পরা হলেই তা কেচে নিন, অনেকেই মাসের পর মাস জিন্‌স কাচেন না। এই অভ্যাসের জন্য জিন্‌স কাপড়ের খুব ক্ষতি হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *