ফটিকছড়িতে যুবলীগের ২ গ্রুপে সংঘর্ষ, আটক ৪

চট্টগ্রামের ফটিকছড়ি উপজেলার সুন্দরপুর ইউনিয়নে যুবলীগের দুই গ্রুপে সংঘর্ষে ১০ জন আহত হয়েছেন। এ ঘটনায় ৪ জনকে পুলিশ আটক করেছে।

বুধবার (৯ সেপ্টেম্বর) রাত ৯টার দিকে আধিপত্য বিস্তার নিয়ে এই সংঘর্ষ হয়।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ফটিকছড়ি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. বাবুল আকতার।

আহতরা হলেন—  ইদ্রিস (৫১), আমান উল্লাহ (৩০), বেনুরা বেগম (৭০), জেসমিন আকতার (৩০), মিনা আকতার (২৬), নাজিম (৪০), নয়ন (২০), শহিদুল্লা (৪৫), ইসমাইল (২২), মনা (৩০), খতিজা বেগম (৭০)।

প্রত্যক্ষদর্শীদের বরাত দিয়ে ওসি মো. বাবুল আকতার জানান, যুবলীগ নেতা মহিউদ্দিন ও শহিদুল্লাহ গ্রুপের মধ্যে এই এলাকাতে দীর্ঘদিন নানান বিষয়ে বিরোধ চলে আসছিল।

বুধবার রাতে যুবলীগ নেতা মহিউদ্দিন গ্রুপের কর্মীরা শহিদুল্লাহ গ্রুপের এক কর্মীকে মারধর করে। খবর পেয়ে শহিদুল্লাহ গ্রুপ মহিউদ্দিন গ্রুপের ওপর হামলা চালায়। এ সময় উভয়পক্ষ ধারালো অস্ত্র, লাটি সোটা ও অবৈধ আগ্নেয়াস্ত্র ব্যবহার করে। এতে উভয় পক্ষের ১০ জন আহত হয়েছেন। আহতদের ফটিকছড়ি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

ওসি আরও জানান, পুলিশ খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে ৩/৪ জনকে আটক করেছে। ওই এলাকায় পুলিশ টহল জোরদার করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *