ভারতীয় সেনাদের নজরদারিতে রাখবে নেপাল

ভারত-চীন চলমান সীমান্ত সংঘাত ও উত্তেজনার মধ্যে লিপুলেখ সীমান্তে সেনা মোতায়েন করেছে নেপাল। নেপাল সরকারের নির্দেশে ভারতের উত্তরাখণ্ডের লিপুলেখ এলাকার কালাপানি উপত্যকায় কর্তব্যরত ভারতীয় সেনা সদস্যদের ওপর নজরদারি শুরু করেছে নেপালি বাহিনী।

 

ভারত, চীন ও নেপালের মধ্যে ত্রি-সংযোগ এলাকায় লিপুলেখের অবস্থান। এটি উত্তরাখণ্ডের কালাপানি উপত্যকার উপরের অংশে অবস্থিত। সম্প্রতি নেপালের কেপি শর্মা ওলি সরকারের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে নেপাল আর্মড পুলিশ ফোর্সের (এনএপিএফ) কাছে একটি নির্দেশিকা পাঠানো হয়।

 

ওই নির্দেশিকায় উত্তরাখণ্ডের কালাপানি উপত্যকায় থাকা ভারত, চীন ও নেপালের সীমান্তে আরও এনএপিএফ মোতায়েন করতে বলা হয়েছে। ওই বাহিনী কর্তব্যরত ভারতীয় সেনা সদস্যদের উপরে নজরদারি চালাবে। এরপরই লিপুলেখ সীমান্তে নেপাল আর্মড পুলিশ ফোর্সের ৪৪ নম্বর ব্যাটালিয়ানকে মোতায়েন করা হয়েছে।

 

নেপাল সরকারের নির্দেশে বলা হয়েছে ভারত ও চীনের মধ্যে উত্তেজনা বাড়ছে, সেজন্য লিপুলেখ সীমান্তে কঠোর নজরদারি করা প্রয়োজন। এনএপিএফ ভারত ও চীনের মধ্যে ক্রমবর্ধমান উত্তেজনা পর্যবেক্ষণ করতে সরকারের কাছে দূরগামী টহল দেয়ার জন্য অনুমতি চেয়েছে।

 

সম্প্রতি লাদাখের গালওয়ান উপত্যকায় ভারত-চীন সীমান্ত সংঘর্ষের পর চীন, লিপুলেখ সীমান্তের ওপারে সেনা মোতায়েন শুরু করেছে। তিনটি দেশের সীমান্তে ১৫০ লাইট কম্বাইন্ড আর্মস ব্রিগেডকে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে।

 

গত জুলাইতে সীমান্ত থেকে ১০ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত পালা এলাকায় চীনা সামরিক চৌকিতে সেনা মোতায়েন শুরু হয়। প্রথমে সেখানে এক হাজার সেনা মোতায়েন করা হয়। পরে সেখানে আরও দুই হাজার সেনা মোতায়েন করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *