বুধবারই নির্ধারণ হবে মেসির ভাগ্য!

ঠিক এক সপ্তাহ আগে ব্যুরোফ্যাক্সের মাধ্যমে বার্সেলোনা কর্মকর্তাদের ন্যু ক্যাম্প ছাড়ার ব্যাপারে নিজের ইচ্ছার কথা জানিয়ে দিয়েছেন মেসি। এরপর থেকেই অনেকটা নিশ্চিত হয়ে যায়, বার্সেলোনার জার্সিতে আর খেলতে যাচ্ছেন না বিশ্বসেরা এই ফুটবলার।

এরই মধ্যে বার্সায় বিক্ষোভ হয়েছে। অনেক অনুরোধ-উপরোধ এসেছে, এমনকি শেষ পর্যন্ত বার্সা সভাপতি হোসে মারিয়া বার্তেম্যুও পদত্যাগ করবেন বলে জানিয়ে দিয়েছেন- তবুও যেন মেসি তার সিদ্ধান্ত পরিবর্তন করেন। কিন্তু কিছুতেই কিছু হলো না।

এরই মধ্যে বিরোধও তৈরি হয়েছে। মেসির রিলিজ ক্লজ নিয়ে। ৭০০ মিলিয়ন ইউরো রিলিজ ক্লজ নির্ধারিত মেসির। বার্সার সঙ্গে এখনও চুক্তির মেয়াদ এক বছর বাকি। কিন্তু মেসি এবং তার আইনজীবীদের দাবি হচ্ছে, গত জুনেই মেসির সঙ্গে চুক্তি বাতিল হয়ে গেছে বার্সার। এখন ফ্রি ট্রান্সফারে মেসি যে কোনো ক্লাবে যেতে পারেন।

কিন্তু বার্সা এটা স্বীকার করতেই রাজি নয়। এমনকি লা লিগা কর্তৃপক্ষও ঘোষণা করেছে, মেসিকে যেতে হলে রিলিজ ক্লজের পুরোটা দিয়েই বার্সা ছাড়তে হবে।

এ নিয়ে বার্সেলোনা কর্মকর্তাদের সঙ্গে একটি বৈঠকেও বসতে চেয়েছিলেন মেসি- শিরোনামে সংবাদ প্রকাশ হয়েছে। অবশেষে সেই বৈঠকটি অনুষ্ঠিত হচ্ছে। আগামী বুধবারই মেসির বাবা এবং এজেন্ট হোর্হে মেসি বৈঠকে বসতে যাচ্ছেন বার্সেলোনা প্রেসিডেন্ট হোসে মারিয়া বার্তেম্যুর সঙ্গে।

বার্সেলোনাভিত্তিক স্প্যানিশ ক্রীড়া দৈনিক মুন্ডো দেপোর্তিভো জানিয়েছে এ খবর। পত্রিকাটি বলছে, ওইদিনই হয়তো নির্ধারিত হবে মেসির ভবিষ্যৎ। তিনি কি বার্সেলোনায়ই থাকবেন, নাকি বার্সা ছেড়ে যাবেন- ঠিক হবে সেদিন। যদি বার্সা ছেড়েই যান, তাহলে কীভাবে যাবেন সেটাও নির্ধারিত হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে মঙ্গলবার।

মুন্ডো দেপোর্তিভো জানায়, হোসে মারিয়া বার্তেম্যুর সঙ্গে ফোনে নিয়মিত যোগাযোগ হচ্ছে মেসির বাবা হোর্হে মেসির। দুজনেই সম্মত হয়েছে আগামী বুধবার একসঙ্গে বসতে রাজি হয়েছেন। সেখানেই মেসির ভবিষ্যৎ নির্ধারণ হবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.