এগিয়ে থেকেও ভারতের সঙ্গে ড্র করল বাংলাদেশ

ফিফা বিশ্বকাপ ২০২২ রাউন্ড দুই এর বাছাইপর্বের ‘ই’ গ্রুপের ম্যাচে এগিয়ে গিয়েও শেষ পর্যন্ত স্বাগতিক ভারতের সঙ্গে ১-১ গোলে ড্র করেছে বাংলাদেশ।  কোলকাতার সল্ট লেকের বিবেকানন্দ যুব ভারতী ক্রীড়াঙ্গন স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত ম্যাচে ১-০ গোলে লীড নেয়া জেমি ডে’র শিষ্যরা শেষ মুহুর্তে গোল হজম করলে সমতা নিয়ে মাঠ ছাড়তে বাধ্য হয়।
ম্যাচের ৪২ মিনিটে সাদ উদ্দিনের গোলে এগিয়ে যায় বাংলাদেশ। কিন্তু ৮৮ মিনিটে ভারতের আদিল খান পরিশোধ করে দেন গোলটি।
ম্যাচের শুরু থেকেই আক্রমণাত্মক মেজাজে খেলতে শুরু করে বাংলাদেশ। শুরুর দ্বিতীয় মিনিটেই একটি গোলের সুযোগ তৈরী করে। তবে ভারতের ডি বক্সেই সেটি আটকে যায়। সফরকারী দলের পরপর কয়েকটি আক্রমণের পরই নিজেদের গুছিয়ে নিয়ে খেলা শুরু করে ভারত। মনোযোগ দেয় প্রতিআক্রমণের দিকে। তবে তারাও আটকে যায় বাংলাদেশ দলের সুরক্ষিত রক্ষনে। গোলরক্ষক আশরাফুল ইসলাম রানাও বেশ কয়েকটি আক্রমন রুখে দেন।
ম্যাচের ৩৪ মিনিটে অবশ্য গোলের সেরা সুযোগটিই তৈরী করে ফেলেছিল ভারত। ডানদিক থেকে নেয়া একটি শট এক হাতে বারের ওপর দিয়ে বাইরে পাঠিয়ে দেন রানা। ফলে হাফ ছেড়ে বাঁচে লাল সবুজ শিবির।
এই মুহুর্তে ফিফা র‌্যাংকিংয়ের ১৮৭তম অবস্থানে রয়েছে বাংলাদেশ। অপরদিকে ভারতের অবস্থান ১০৪। র‌্যাংকিংয়ে ৮৩ ধাপ এগিয়ে থাকা ভারত এ পর্যায়ে কিছুটা আধিপত্য বিস্তার করলেও বাংলাদেশ তাদের সঙ্গে পাল্লা দিয়েই সুযোগ তৈরির চেস্টা করে। সেই সুযোগেরই একটি কাজে লাগিয়ে ম্যাচের ৪২ মিনিটে গোল করে এগিয়ে যায় বাংলাদেশ।
অধিনায়ক জামাল ভূঁইয়ার দুর্দান্ত এক ফ্রি কিক বক্সের মধ্যে পেয়ে মাথা ছুঁইয়ে দেন সাদ উদ্দিন। ভারতীয় গোলরক্ষক এসময় বল নিয়ন্ত্রণে নেয়ার চেস্টা করে ব্যর্থ হলে ফাঁকায় পেয়ে যান সাদ উদ্দিন। তার ঝাপিয়ে পড়া হেডের ছোঁয়ায় সেটি জড়িয়ে যায় ভারতের জালে। ফলে ১-০ গোলে এগিয়ে যায় বাংলাদেশ। ওই ব্যবধানে এগিয়ে থেকেই প্রথমার্ধ্ব শেষ করে জেমি ডে’র শিষ্যরা।
দ্বিতীয়ার্ধে গোল পরিশোধে মরিয়া হয়ে ওঠে ভারত। এ অর্ধের শুরুতে তারা বেশ কয়েকটি আক্রমণ রচনা করে। তব রক্ষন ভাগের দক্ষতায় এবং গোল রক্ষক আশরাফুলের দৃঢ়তায় সফল হতে পারেনি তারা। এ সময় প্রতিআক্রমন থেকে নিশ্চিত গোলের সুযোগ পেয়েও খেই হারিয়ে ফেলায় গোল করতে ব্যর্থ হয়েছেন নাবিব নেওয়াজ জীবন ও বিপলু আহমেদ। শেষ পর্যন্ত ম্যাচের ৮৮ মিনিটে স্বাগতিক দলের অধিনায়ক সুনিল ছেত্রির কর্নারের শটে আকষ্মিভাবে লাফিয়ে উঠে কৌনিক হেডে বল জালে জড়িয়ে দেন আদিল খান। ঘটনাটি এতটাই আকষ্মিকভাবে ঘটেছিল যে জটলায় থাকা বাংলাদেশ দলের রক্ষনের খেলোয়াড় ও গোল রক্ষকের কিছুই করার ছিলনা। ফলে ১-১ গোলের সমতা নিয়ে মাঠ ছাড়তে হয় জেমি ডে’র শিষ্যদের।
বাংলাদেশ স্কোয়াড : মনজুরুর রহমান, রহমত মিয়া, ইয়াসিন খান, টুটুল হোসেন বাদশা, জামাল ভুঁইয়া, বিপ্লব আহমেদ, তাওহিদুল আলম সবুজ, নবাব নেওয়াজ জীবন, রবিউল হাসান, মতিন মিয়া, সোহেল রানা, আনিসুর রহমান, আরিফুর রহমান, মামুনুল ইসলাম মামুন, মোহাম্মদ ইব্রাহিম, রিয়াদুল হাসান, ইয়াসিন আরাফাত, রায়হান হাসান, মাহবুবুর রহমান, জুয়েল রানা, স্বাদ উদ্দিন ও শহিদুল আলম।
ভারত স্কোয়াড : গুরপ্রীত সিং সাধু, অ¤্রন্দিার সিং, কমলজিত সিং, প্রিতম কোটাল, রাহুল ভেকে, আদিল খান, নরেন্দ্র, সার্থক গলুই, আনাস আদাথোদিকা, মন্দর রাও দেশাই, সুভাশিষ বোস, উদান্ত সিং, নিখিল পুজারি, বিনিত রাই, অনিরুদ্ধ থাপা, আবদুল শাহাল, রেনিয়ার ফার্নান্দেস, ব্র্যান্ডন ফার্নান্দেস, লালিয়ানজুয়ালা ছাংতে, আশিক ছুরুনিয়ান, সুনিল ছেত্রি, বলবন্ত সিং ও মানবির সিং।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

11 + 4 =

Translate »